মোদির আগমনের বিষয়টি বিবেচনা করা উচিত: জিএম কাদের

রংপুর প্রতিনিধি:
বাংলাদেশের স্বাধীনতা সংগ্রামে ভারতের অবদানের কথা চিন্তা করে দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীর অনুষ্ঠানে আগমনের বিষয়টি বিবেচনা করা উচিত বলে জানিয়েছেন জাতীয় পার্টির (জাপা) চেয়ারম্যান জি এম কাদের।
মঙ্গলবার দুপুরে তিন দিনের সফরে লালমনিরহাট যাওয়ার পথে জাপার প্রয়াত চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের পল্লীনিবাস বাসভবনে তিনি সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন।
জিএম কাদের বলেন, আমাদের স্বাধীনতা সংগ্রামে সর্বাত্মক সহযোগিতা করেছিল ভারত। বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীতে ভারতের জনগণের প্রতি সম্মান ও কৃতজ্ঞতা জানানো আমাদের দায়িত্ব। ভারতের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নরেন্দ্র মোদিকে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীর অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। তিনি আসতেও সম্মত হয়েছেন। মুক্তিযুদ্ধে তাদের অবদানের কথা চিন্তা করে সবাইকে বিষয়টি বিবেচনা করা উচিত।
জাপা চেয়ারম্যান বলেন, ভারত আমাদের ভালো বন্ধুপ্রতিম দেশ। আমাদের ইতিহাস-সংস্কৃতির অনেক ড়্গেত্রে তাদের সঙ্গে মিল রয়েছে। এছাড়া ভারতের মতো বড় ও শক্তিশালী দেশের সঙ্গে আমাদের সম্পর্ক যত ভালো হবে তত বাংলাদেশের জন্য মঙ্গল। এই ধরনের সফরে আমাদের দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক আরও জোরদার হবে। ভারত-বাংলাদেশের মধ্যকার অনিষ্পত্তি হওয়া সমস্যাগুলো নিষ্পত্তি হবে।
তিনি বলেন, দিল্লিতে সহিংসতাকারীদের বিরুদ্ধে ভারত সরকার ব্যবস্থা নিচ্ছে। মুসলিমদের ওপর অত্যাচার ভারতের জনগণ ও সরকার পছন্দ করছে না। এটা আর বাড়বে না বলে আমরা প্রত্যাশা করি। এর আগে জিএম কাদের জাপার প্রয়াত চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের কবর জিয়ারত করেন।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন মহানগর জাতীয় পার্টির সাধারণ সম্পাদক এস এম ইয়াসির আহমেদ, জেলা জাতীয় পার্টির যুগ্ম সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক, সদর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মাসুদার রহমান মিলন, জাপা নেতা অ্যাড. মোকাম্মেল হোসেন, আজমল হোসেন লেবু, মহানগর যুবসংহতির সভাপতি শাহীন হোসেন জাকিরসহ যুবসংহতি ও ছাত্র সমাজের নেতারা। #