মে ২৭, ২০২৪

আমাদের সম্পর্কে আরো জানুনঃ

সোমবার ভারতের করোনা টিকার হিউম্যান ট্রায়াল শুরু

উন্নয়ন ডেস্ক –

ভারতের তৈরি করা করোনাভাইরাসের টিকা কোভ্যাক্সিনের হিউম্যান ট্রায়াল (মানবদেহে পরীক্ষা) শুরু হচ্ছে সোমবার। ওষুধ কোম্পানি বায়োটেকের তত্ত্বাবধানে তৈরি এ টিকা মানব শরীরে পরীক্ষামূলক প্রয়োগের অনুমোদন দিয়েছে অল ইন্ডিয়া ইনস্টিটিউট অব মেডিকেল সায়েন্সেস (এইমস) এর এথিক্স কমিটি। খবর এনডিটিভির।

ভারতীয় চিকিৎসা গবেষণা পরিষদ-আইসিএমআর ১২টি প্রতিষ্ঠান নির্বাচিত করেছে এই ট্রায়ালের জন্য। এই ১২ প্রতিষ্ঠানে ধাপ-১ ও ধাপ-২-এর ট্রায়াল চলবে। প্রথম ধাপে ৩৭৫ জন স্বেচ্ছাসেবকের শরীরে টিকা প্রয়োগ করা হবে। ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালের জন্য নির্বাচিত স্বেচ্ছাসেবকদের বয়স ১৮ থেকে ৫৫ বছরের মধ্যে। স্বেচ্ছাসেবকদের কোভ্যাক্সিনের মোট তিনটি ডোজ দেওয়ার পর তাদের পর্যবেক্ষণে রাখা হবে।

ট্রায়াল প্রসঙ্গে এইমসের চিকিৎসক সঞ্জয় রাই বলেন, এইমস এথিক্স কমিটি হিউম্যান ক্লিনিকাল ট্রায়ালের অনুমোদন দিয়েছে। স্বাস্থ্যবান স্বেচ্ছাসেবক এবং যাদের বয়স ১৮-৫৫, তারাই এতে অংশ নিতে পারবেন। তবে কোমর্বিডিটি (অন্য কোনো ধরনের শারীরিক অসুস্থতা) থাকলে কিংবা আগে করোনায় সংক্রমিত হলে চলবে না।

তিনি জানান, কিছু স্বেচ্ছাসেবক নাম নথিভুক্ত করেছেন। আমরা সোমবার থেকে তাদের পর্যবেক্ষণে রাখবো। টিকা প্রয়োগের আগে শারীরিক পরিস্থিতি যাচাই করবো।

এদিকে রোববার ভারতের কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পরিসংখ্যান অনুসারে, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে রেকর্ড ৩৮ হাজার ৯০২ জন নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন। এ নিয়ে ভারতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হলো ১০ লাখ ৭৭ হাজার ৬১৮ জন।

আক্রান্তের পাশাপাশি ভারতে বাড়ছে মৃত্যুর সংখ্যাও। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পরিসংখ্যান অনুসারে, গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় মৃত্যু হয়েছে ৫৪৩ জনের। এ নিয়ে দেশটিতে মোট ২৬ হাজার ৮১৬ জনের প্রাণ কাড়ল করোনাভাইরাস।

এর মধ্যে মহারাষ্ট্রেই মৃত্যু হয়েছে ১১ হাজার ৫৯৬ জনের। মৃত্যুর তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে থাকা দিল্লিতে প্রাণহানি ঘটেছে ৩ হাজার ৫৯৭ জনের। তামিলনাড়ুতে করোনা প্রাণ কেড়েছে ২ হাজার ৪০৩ জনের। গুজরাটে ২ হাজার ১২২ জনের মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া কর্নাটকে ১ হাজার ২৪০ জন, উত্তরপ্রদেশে ১ হাজার ১০৮ জন ও পশ্চিমবঙ্গে ১ হাজার ৭৬ জনের মৃত্যু হয়েছে।

Facebook
Twitter
LinkedIn
Pinterest
Reddit