জুলাই ১৭, ২০২৪

আমাদের সম্পর্কে আরো জানুনঃ

১৪ বছর পর মোহামেডান-আবাহনী ফাইনাল

কুমিল্লা শহরের প্রাণকেন্দ্রে ধর্মসাগর নামে যে প্রাচীন দীঘি, তার পূর্বপাড়ে জেলা স্কুলের দেয়াল ঘেঁষে কালের সাক্ষী হয়ে দাঁড়িয়ে জেলার ঐতিহ্যবাহী স্টেডিয়াম। এক সময়ের কুমিল্লা স্টেডিয়াম নাম বদলে এখন হয়েছে ‘ভাষা শহীদ ধীরেন্দ্রনাথ দত্ত স্টেডিয়াম।’

চার বছর আগে ২০ হাজার দর্শক ধারণক্ষমতার এ স্টেডিয়ামের অভিষেক হয়েছে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের ভেন্যু হিসেবে। দেশের ঐতিহ্যবাহী মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব লিমিটেড এ ভেন্যুতে ঘাঁটি গেড়েছিল।

পরে সাদাকালোরা ভেন্যু ভাগাভাগি করেছিল দেশের ফুটবলের নতুন পরাশক্তি বসুন্ধরা কিংসের সঙ্গে। এখন অবশ্য কিংসের নিজস্ব ভেন্যু হয়েছে। প্রিমিয়ার লিগে মোহামেডানের হোম ভেন্যু এটাই।

কুমিল্লার এই স্টেডিয়াম ঘিরে এখন সাজসাজ রব। শীর্ষ লিগের ভেন্যু হিসেবে অভিষেকের পর আগামীকাল এই প্রথম কোনো ঐতিহাসিক ম্যাচ উপহার দিতে যাচ্ছে এই স্টেডিয়াম। মঙ্গলবার বিকেলে এখানে দেশের দুই ঐতিহ্যবাহী ক্লাব মোহামেডান ও আবাহনী মুখোমুখি হবে ফেডারেশন কাপ ফুটবলের ফাইনালে।

দীর্ঘ ১৪ বছর পর এই টুর্নামেন্টের ফাইনালে টক্কর দিতে যাচ্ছে দেশসেরা দুই ক্লাব। ঢাকার বাইরে প্রথমবারের মতো দুই দল কোনো টুর্নামেন্টের ফাইনালে মুখোমুখি হতে যাচ্ছে।

বিদেশে মোহামেডান ও আবাহনী ফাইনালে মুখোমুখি হলেও, দেশে ঢাকার বাইরে এই প্রথম। এই ম্যাচ ঘিরে দীর্ঘদিন পর দেশের ফুটবলামোদীরা দুইভাবে বিভক্ত হয়ে পড়েছেন। দুই ক্লাবের বহু সমর্থক ম্যাচ দেখতে কুমিল্লা যাওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছেন। এ ম্যাচটি মনে করিয়ে দিচ্ছে আশি-নব্বইয়ের ফুটবল উম্মাদনার কথা।

২০০৯ সালে শেষবার ফেডারেশন কাপ ফুটবলের ফাইনালে মুখোমুখি হয়েছিল দুই দল। সেই ফাইনালের পর দীর্ঘ ১৪ বছরে ফেডারেশন কাপ হয়েছে ১১টি। আবাহনী ৫ বার ফাইনালে উঠে পাঁচবারই চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল। মোহামেডান একবারও ফাইনালের উঠতে পারেনি। যে কারণে ফাইনালে দুই দলের দেখাই হয়নি।

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে প্রতি মৌসুমে দুইবার মোহামেডান-আবাহনীর ম্যাচ দেখা যায়। তবে কোনো টুর্নামেন্টের ফাইনালের মজাই আলাদা। আর সে লড়াই যদি হয় মোহামেডান-আবাহনীর, তাহলে তো কথাই নেই! সেই লড়াই-ই অনেক দিন পর দেখতে যাচ্ছে দর্শক।

Facebook
Twitter
LinkedIn
Pinterest
Reddit